ঢাকাবুধবার , ২১ ডিসেম্বর ২০২২

গাজীপুরে বটিতে পা কাটার এক ঘন্টা পর শিশুর রহস্যজনক মৃত্যু

চঞ্চল খান,
ডিসেম্বর ২১, ২০২২ ৭:২৯ অপরাহ্ণ
Link Copied!
   
                       

চঞ্চল খান,বিশেষ প্রতিনিধি গাজীপুরঃ
বাড়ীর উঠানেই খেলছিলো শিশু সিয়াম,খেলার ছলে বটিতে পা কাটার এক ঘন্টা পর শিশুর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (২১ ডিসেম্বর) বেলা ১২ টার সময় গাজীপুর জেলার শ্রীপুরের পৌর এলাকার চন্না পাড়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। সাড়ে তিন বছর বয়সী শিশু সিয়াম এর বাবা শহিদুল ইসলাম একই থানার বদনীভাংগা গ্রামের বাসিন্দা। সিয়াম তার নানুর বাসায় থাকতো। সিয়ামের মা সেতু স্থানীয় একটি পোশাক কারখানার শ্রমিক।

সিয়ামের নানা রাফেল জানান, সংবাদ পাওয়ার সাথে সাথে পার্শ্ববর্তী রাহুল ডাক্তারের ফার্মেসিতে নিয়ে যায়। ডাক্তার সিয়ামকে দুটি ইনজেকশন দিয়ে পায়ের তলায় দশটি সেলাই দিয়ে ব্যান্ডেজ করে ছেড়ে দেয়। তার কিছুক্ষণ পর সিয়ামের খিচুনি উঠলে মাওনা চৌরাস্তা আলহেরা হাসপাতালে নেওয়ার পর ৫ মিনিটের মধ্যে সিয়াম এর মৃত্যু হয়। ডাক্তার জানিয়েছে সিয়াম স্টুক করে মারা গেছে। প্রতিবেশী নজরুল ইসলাম বলেন, মানুষের পা বিচ্ছিন্ন হলো তার মৃত্যু হয় না। সিয়ামের পায়ের তলা কেটে মৃত্যু হয়েছে তা অত্যন্ত দুঃখজনক। পল্লী চিকিৎসক রাহুল বলেন, শরীর অবস করার জন্য ২ টি ইনজেকশন দিয়ে সেলাই শুরু করি,সেলাই করার সময় সিয়াম কান্নাকাটি করেনি। তবে তার সাথে যারা ছিল তারা বেশ কান্নাকাটি করেছে। আমি যশোর থেকে এই এলাকায় ১৪ বছর যাবত সুনামের সহিত চিকিৎসা করে আসছি।সিয়ামের পরিবার জানান, বাদ মাগরিব জানাযা ও দাফন কার্য সম্পন্ন হবে। আপাতত তাদের কোনো অভিযোগ নেই। শ্রীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জানান, পরিবারের নিকট থেকে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।