ঢাকাশনিবার , ১১ মে ২০২৪

ধামইরহাটে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে প্রতিবন্ধী পরিবারের রাস্তা বন্ধের অভিযোগ

দৈনিক প্রথম বাংলাদেশ
মে ১১, ২০২৪ ৮:০৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!
   
                       

নওগাঁর ধামইরহাটে এক প্রতিবন্ধী পরিবারের বাড়ির বাইরে যাওয়ার রাস্তা বন্ধের অভিযোগ পাওয়া গেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। বাড়ী থেকে বের হওয়ার রাস্তা বন্ধ হওয়ায় পরিবারের দুই শ্রবণ প্রতিবন্ধীসহ পুরো বাড়ীর সকলেই মানবেতর জীবন যাপন করছে। এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে ধামইরহাট থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে ভুক্তভোগী পরিবার। থানার অভিযোগ সূত্রে ও সরেজমিনে জানা গেছে, ফতেপুর (চকবদন) গ্রামের মোকলেছুর রহমানের ছেলে খালেকুজ্জামান বাড়ী নির্মানের প্রায় ২০ বছর যাবত জনৈক প্রতিবেশী নজরুল ইসলামের খলিয়ান দিয়ে হাটাচলা করতো। সামাজিক বিরোধ থাকায় ক্ষিপ্ত হয়ে একই গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে প্রভাবশালী নজরুল ইসলাম অসহায় খালেকুজ্জামানের বাড়ী থেকে বের হওয়ার রাস্তা বরাবর বাঁশের রেলিং বেড়া দিয়ে রাস্তা বন্ধ করে দেয়। স্থানীয়দের কোন পরামর্শ কর্ণপাত করেন না প্রভাবশালী নজরুল ইসলাম।

ভুক্তভোগী খালেকুজ্জামান বলেন, ‘আমি ও আমার মা শ্রবন প্রতিবন্ধী, আমাদের ২০ বছরের চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছে, আমরা এখন কিভাবে বাড়ীর বাহিরে যাবো, যেদিক দিয়েই হোক একটা রাস্তা আমাদের চাই।’ ফতেপুর গ্রামের প্রবীন আব্দুস সামাদ বলেন, ভুক্তভোগীরা নজরুলের বাড়ীর খলিয়ান দিয়েই হাটাচলা করতো, রাস্তাটি বন্ধ করে দেওয়ায় তাদের কষ্ট বেড়ে গেছে।’ অভিযুক্ত নজরুল ইসলাম বলেন, ‘আমিও আমার বাড়ী থেকে বের হওয়ার রাস্তা ৬ লাখ টাকা দিয়ে কিনেছি, তাই খালেকুজ্জামানকেও রাস্তা কিনে বের হতে হবে, আর তারা এখন যে জমির আইল দিয়ে হাটছে, সেটিও আমারই জায়গা, ধান কেটে সেটিও বন্ধ করে দিবো।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুল মতিন জানান, বিষয়টি আমাকে কেউ বলেনি, তবে কারও রাস্তা বন্ধ করা উচিত নয়।’ ধামইরহাট থানার সাব-ইন্সপেক্টর ও আড়ানগর ইউনিয়নের বিট পুলিশের বিট অফিসার এস.আই শফিকুল ইসলাম বলেন, ‘অভিযুক্ত নজরুল ইসলাম রাস্তা বন্ধ করে যে দেড় ফিট ছেড়েছে, সেই আইল দিয়ে চলাচল অসম্ভব, বিষয়টি নিরসনে জনপ্রতিনিধি ও দায়িত্বশীলদের এগিয়ে আসা উচিত।’ আড়ানগর ইউপি চেয়ারম্যান মোসাদ্দেকুর রহমান বলেন,‘ বিষয়টি আমার জানা নেই, আমি স্থানীয় ইউপি সদস্যকে বিষয়টি নিরসনে নির্দেশনা প্রদান করবো।’