ঢাকারবিবার , ২৯ জানুয়ারি ২০২৩

সম্মান বাঁচাতে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

মনজু হোসেন
জানুয়ারি ২৯, ২০২৩ ৭:৪৯ অপরাহ্ণ
Link Copied!
   
                       

মনজু হোসেন স্টাফ রিপোর্টারঃ
নিজের সম্মান বাঁচাতে বাড়িতেই আত্মহত্যা করেছে ময়না আক্তার (১৭) নামের এক দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী।শনিবার সকালে নিজ বাড়িতে আত্মহত্যা করে সে। ময়নাতদন্ত শেষে রোববার দুপুরে ময়নার লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। ঘটনাটি বোদা উপজেলার কালিয়াগঞ্জ কাজলদিঘী ইউনিয়নের ঝলঝলি বানিয়া পাড়া এলাকার সুরাব আলীর মেয়ে এবং কামাতকুঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ ম শ্রেনীর ছাত্রী। পরিবারের লোকজন ও স্থানীয়রা জানায়, এর আগে শুক্রবার রাতে ময়নার শোয়ার ঘরে প্রেমিক ডাঙ্গাপাড়া এলাকার আব্বেস আলীর ছেলে জুয়েল সাথে অসামাজিক কার্যকলাপে আটক হয় ওই রাতেই পরিবারের লোকজনসহ স্থানীয়রা বসে শালিসের চেষ্টা করে সুরাহ না হওয়ায় তাকে ছেড়ে দেয়।জুয়েলের সাথে বিয়ের ব্যবস্থা না করে ছেড়ে দেওয়ায় নিজের সম্মান বাঁচাতে শনিবার সকালে নিজের ঘরেই ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে ময়না।
এদিকে জুয়েলের স্ত্রী ও ছয় বছরের ছেলে সন্তানও আছে। তবে তিন বছর ধরে স্ত্রী তার বাপের বাড়িতে থাকেন।ঘটনার পর থেকে জুয়েল লাপাত্তা হয়েছেন। ময়নার মা নুরজাহান বেগম জানান,জুয়েল নামে ওই ছেলের কারনে আমার মেয়ে আত্মহত্যা করতে বাধ্য হয়েছে।তিনি আরো বলেন ওই ছেলের ব্যবহৃত মোবাইল পরিহিত জুতা,জাঙ্গিয়া, মাফলার মেয়ের ঘরে পাওয়া গেছে।সেগুলো পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।এসময় অপরাধীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করছেন তিনি। বোদা থানার অফিসার ইনচার্জ সুজয় কুমার রায় জানান, ময়নার লাশের ময়নাতদন্ত করানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে বিস্তারিত জানা যাবে।লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। আর পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হলে সে অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।